Thikana News
১৪ জুলাই ২০২৪
  1. ই-পেপার
  2. চলতি সংখ্যা
  3. বিশেষ সংখ্যা
  4. প্রধান সংবাদ
  5. আমেরিকার অন্দরে
  6. বিশ্বচরাচর
আমেরিকা রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪

ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে চালের গুঁড়োর ফেসপ্যাক

ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে চালের গুঁড়োর ফেসপ্যাক
সারা বছরই ত্বক উজ্জ্বল ও মসৃণ থাকুক তা সবাই চায়। কিন্তু ধুলোবালি, বায়ুদূষণ এবং শারীরিক নানা কারণে ত্বকের উজ্জ্বলভাব ক্রমশ যেন হারিয়ে যেতে থাকে। হারানো উজ্জ্বলতা ফেরাতে অনেকেই বাজারের বিভিন্ন পণ্য ব্যবহার করেন। এমনকি ডাক্তারদের শরণাপন্ন হন। তবে ত্বকের যত্ন নেওয়ার জন্য আজকাল অনেকেই ভরসা রাখেন কোরিয়ান স্কিনকেয়ার রুটিনে। কারণ কোরিয়ান সুন্দরীদের স্কিনকেয়ার রুটিন সাম্প্রতিক সময়ে বেশ ট্রেন্ডিং। কোরিয়ানদের মতো গ্লাস স্কিন পেতে জোরকদমে চেষ্টাও চালান অনেকেই। কখনও এই সিরাম ট্রাই করেন তো আবার কখনও মুখে মাখেন অন্য কিছু। এবার এক অদ্ভুত ফেসপ্যাক বেশ ভাইরাল হয়েছে। অনেকেই চালের গুঁড়ো এবং ফ্ল্যাক্স সিডের ফেসপ্যাক বানিয়ে মুখে লাগাচ্ছেন। চলুন এ ফেসপ্যাকের কার্যকারিতা সম্পর্কে জেনে নিই।

যেভাবে বানাবেন ফেসমাস্কটি—

ফেসপ্যাক বানানোর জন্য আপনার প্রয়োজন দুই চামচ চালের গুঁড়ো, পরিমাণ মতো পানি এবং ফ্ল্যাক্স সিড। এক্ষেত্রে ১ চামচ আস্ত ফ্ল্যাক্সসিড ও ১ চামচ ফ্ল্যাক্সসিড গুঁড়ো ব্যবহার করতে হবে। প্রতিটি উপকরণ নিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে নিন। তাহলেই আপনার ফ্ল্যাক্সসিড ফেসমাস্ক তৈরি।

এটি মুখে লাগানোর পরে আরও ১০ মিনিট অপেক্ষা করে ফেসওয়াশ করে নিন। শেষে টোনার এবং ময়শ্চারাইজার লাগাতে ভুলবেন না।

কার্যকারিতা—

ফ্ল্যাক্সসিড এবং চালের গুঁড়োর ফেসপ্যাক লাগালে উজ্জ্বলতা বাড়বে। কিন্তু সেই উজ্জ্বলতা সাময়িক। হয়তো আপনার ত্বক আরও উজ্জ্বল দেখাবে এবং চকচক করবে। কিন্তু তার ফল সুদূরপ্রসারী হবে না। কারণ কিছুক্ষণ পরেই আবার সেই জেল্লা ফিকে হয়ে যাবে। আর ত্বকের সৌন্দর্যও কমতে শুরু করবে।

উপকার পাবেন যেভাবে—

ফ্ল্যাক্স সিডে রয়েছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড, অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট এবং ফাইবার। এগুলো ত্বকের সৌন্দর্য বাড়াতে সাহায্য করে। এমনকী ত্বকের উজ্জ্বলভাবও অটুট রাখে। কিন্তু এসব উপকার পাওয়ার জন্য নিয়মিত ফ্ল্যাক্স সিড খাওয়া প্রয়োজন। এই বীজ ফেসপ্যাকে মিশিয়ে মুখে লাগালে কোনও উপকারই মেলে না।

সাময়িক উজ্জ্বলতা বাড়াবে এই উপাদান: চালের গুঁড়ো প্রাকৃতিক এক্সফোলিয়েটর হিসেবে কাজ করে। অর্থাৎ আপনি যদি নিয়মিত চালের গুঁড়ো মুখে লাগান, তাহলে ত্বকের মৃত কোষের স্তর পরিষ্কার হয়ে যায়। ফলে ত্বকের ভিতরে রক্ত সঞ্চালন বাড়ে। অক্সিজেন সরবরাহও পর্যাপ্ত পরিমাণে হয়। তাই সাময়িকভাবে উজ্জ্বল বৃদ্ধি পায়।

ত্বকের ধরন বোঝা জরুরি: প্রত্যেকের ত্বকের ধরন আলাদা। তাই আপনার ত্বকে কোনও উপাদান কার্যকরী হলে অন্য কারও ত্বকে সেটা নাও হতে পারে। তাই কোনওরকম ঘরোয়া ফেসপ্যাক মুখে লাগানোর আগে সব সময়ে প্যাচ টেস্ট করে নেওয়া জরুরি বলে জানালেন রূপ চিকিৎসকরা। তাহলে আপনার ত্বকও সুরক্ষিত থাকে এবং ত্বকের সৌন্দর্য নিয়ে কোনও চিন্তা ভাবনা করতে হয় না।

এই টিপস জেনে রাখুন: ফ্ল্যাক্স সিড এবং চালের গুঁড়োর ফেসপ্যাক লাগালে সাময়িক জেল্লা পাবেনই। কিন্তু ত্বকের সামগ্রিক সুস্বাস্থ্য ধরে রাখার জন্য আপনাকে সঠিক স্কিনকেয়ার রুটিন ফলো করতে হবে। একইসঙ্গে স্বাস্থ্যকর জীবনশৈলীও মেনে চলতে হবে। তাহলে আপনার ত্বক ভালো থাকবে এবং উজ্জ্বলও হবে দেখার মতো।

ঠিকানা/এএস 

কমেন্ট বক্স